ফেসবুকের বিরুদ্ধে বিজ্ঞাপন প্রদর্শনে অভিযোগ

বিশ্বের জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকের বিরুদ্ধে বিজ্ঞাপন প্রদর্শনে বর্ণ্যবৈষম্যের অভিযোগ এনেছে যুক্তরাষ্ট্রের ‘ডিপার্টমেন্ট অব হাউজিং অ্যান্ড আরবান ডেভেলপমেন্ট’ (হাড)। দেশটির ‘ফেয়ার হাউজিং’ বিধি ভঙ্গের অভিযোগ তুলে সংস্থাটি বলেছে, ফেসবুক বর্ণের ভিত্তিতে বাড়ি কেনা-বেচার বিজ্ঞাপন দেখানোর সুযোগ দেয়।

ফেসবুকের বিরুদ্ধে বিজ্ঞাপন প্রদর্শনে অভিযোগ

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, এখানেই শেষ নয়। হাড ফেসবুকের বিরুদ্ধে ধর্ম, পারিবারিক অবস্থা, লিঙ্গ, প্রতিবন্ধীত্ব ইত্যাদি বৈশিষ্ট্যের ভিত্তিতে কোন গোষ্ঠীকে কোন বিজ্ঞাপন দেখানো হবে বা আদৌ দেখানো হবে কি না তা নির্ধারণের সুযোগ দেয় বিজ্ঞাপনদাতাদের।

ফেসবুকে প্রায় ২৭০ কোটি ব্যবহারকারী রয়েছে। এর বার্ষিক আয় পাঁচ হাজার ৬০০ কোটি ডলার। ব্যবহারকারীদের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে বৈষম্যমূলকভাবে বিজ্ঞাপন ‘টার্গেটের’ সুযোগ নিয়ে ওঠা অভিযোগ এবার প্রথম নয়।

২০১৬ সালে জানা গিয়েছিল, ব্যবহারকারীরা তাদের পেশাগত পরিচয় হিসেবে যা-ই, লেখে না কেন সেই তথ্য ব্যবহার করে তাদেরকে বিজ্ঞাপন দেখানো যায়। এমন কি কোনও ব্যবহারকারী যদি নিজের পেশাগত পরিচয়ের স্থানে ‘ইহুদিবিদ্বেষী’ লেখা থাকে তাহলেও।

ফেসবুকে প্রায় ২৭০ কোটি ব্যবহারকারী রয়েছে: 

যুক্তরাষ্ট্রের হাড আপত্তি জানিয়ে বলেছে, আমেরিকায় জন্ম হয়নি, খ্রিস্টান হওয়া বা না হওয়া, অভিভাবকের পরিচয় ইত্যাদি বৈশিষ্ট্যের সাপেক্ষে হাউজিং সংক্রান্ত বিজ্ঞাপন টার্গেট করার সুযোগ দিয়ে বিধি ভঙ্গের ঘটনা ঘটিয়েছে ফেসবুক। গবেষকরা রয়টার্সকে বলেছেন, বয়সের ভিত্তিতে ভাগ করে কোনও নির্দিষ্ট গোষ্ঠীকে নির্দিষ্ট কোনও বিজ্ঞাপন দেখতে দেওয়া না দেওয়ার মতো কাজ করা হলে সেটাও ‘ফেয়ার হাউজিং অ্যাক্টের’ খেলাপ ঘটায়।

হাডের সেক্রেটারি বেন কারসন মন্তব্য করেছেন, ‘ব্যবহারকারীর পরিচয় ও তার বাসস্থানের তথ্যের ওপর ভিত্তি করে ফেসবুক বৈষম্য করছে। কোনও কম্পিউটারের মাধ্যমে একজন ব্যক্তির বাড়ি কেনার সংক্রান্ত অপশনগুলো কমিয়ে দেওয়া আর কারও মুখের ওপর দরজা বন্ধ করে দেওয়া একই কথা।’

হাড ফেসবুকের বিরুদ্ধে বর্ণ্যবৈষম্যের অভিযোগ এনে ক্ষতিপূরণের মামলা করেছে। তবে কী পরিমাণ অর্থ তারা দাবি করেছে, তা প্রকাশ করা হয়নি। ফেসবুক জানিয়েছে, তারা এমন অভিযোগে অত্যন্ত বিস্মিত। বিষয়টি সমাধানে তারা হাডের সঙ্গে যোগাযোগ করেছে। বর্ণবৈষম্য করে এমন বিজ্ঞাপন তাদের ওয়েবসাইট থেকে সরিয়ে ফেলা হবে।

প্রাপক নির্ধারণে বিজ্ঞাপনদাতাদের বৈষম্য: 

বাড়ি বিক্রয়ের বিষয়ে দেওয়া বিজ্ঞাপনের প্রাপক নির্ধারণে বিজ্ঞাপনদাতাদের বৈষম্য করা এবং ফেসবুকের তাতে ছাড় দেওয়ার অভিযোগ তুলেছিল সংবাদমাধ্যম প্রোপাবলিকা। এতে ফেসবুক যুক্তরাষ্ট্রের ‘ন্যাশনাল ফেয়ার অ্যালায়েন্স,’ ‘আমেরিকান সিভিল লিবার্টিস ইউনিয়ন,’ কমিউনিকেশনস ওয়ার্কার্স অব আমেরিকাসহ’ আরও বহু প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে বৈষম্যের অভিযোগে অভিযুক্ত হয়েছে।

অভিযোগগুলোর পরিপ্রেক্ষিতে গত সপ্তাহে ফেসবুক জানিয়েছিল, তারা তাদের ‘টার্গেটেড’ বিজ্ঞাপন প্রচারে ব্যবস্থাপনায় পরিবর্তন আনবে। বিশেষ করে হাউজিং ও চাকরির বিজ্ঞাপনে তারা বিশেষ বৈশিষ্ট্যের ভিত্তিতে কোনও নির্দিষ্ট জনগোষ্ঠীর উদ্দেশে বিজ্ঞাপন দেখানোর সুবিধা বন্ধ করে দেবে। তাছাড়া, তারা এমন একটি টুল বানাবে যা দিয়ে ব্যবহারকারীরা ফেসবুকে বিজ্ঞাপনদাতাদের দেওয়া বাড়ি বিক্রি ও চাকরি সংক্রান্ত সব বিজ্ঞাপন দেখতে পারবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *